শপিংমলে যাবো না, কেনাকাটা করবো না

0 113

স্কুল কলেজ বিশ্ববিদ্যালয় বন্ধ রেখে যাদের করোনা’র থাবা থেকে বাঁচানোর চেষ্টা করা হয়েছে; শপিংমল খুলে দিলে ঘরে ঘরে তারাই বেশিরভাগ আক্রান্ত হবে! কারণ পুরুষের তুলনায় নারীরাই ঈদের কেনাকাটা করে বেশি। এখন পর্যন্ত করোনায় যে কজন মারা গেছেন তাদের মধ্যে নারীর তুলনায় পুরুষের মৃত্যুর হার বেশি। এর কারণ, শিক্ষা প্রতিষ্ঠান বন্ধ থাকায় সাধারণ নারীদের এখন বেশি একটা বাইরে বেরুতে হয় না।

তাই শিশু এবং নারীরা অনেকটাই নিরাপদে আছে।কিন্তু এই মুহূর্তে শপিংমল খুলে দিলেই যেটুকু নিরাপত্তা এতোদিন বজায় ছিলো তা মুহূর্তেই নষ্ট হয়ে যাবে। মহিলাগণ শপিংমলে ছুটবে আর করোনা
ভাইরাস নিয়ে পরিবারের কাছে ফিরবে! তাই এই ঈদে সবারই ধৈর্য্য ধরা উচিৎ। আগে করোনা নির্মূল হোক, তার আগে শুধু নিরাপদে বেঁচে থাকা ছাড়া আর কোনো শখ না থাকাই ভালো। এই সংযমের মাসে প্রকৃত সংযমী হবো। শপিংমলে যাব না, কেনাকাটা করবো না।

০৪/০৫/২০

আরও পড়ুন

তিনি গত বছরের ১৬ মে করোনায় আক্রান্ত হয়ে মৃত্যুবরণ করেন।

বিএনপি নেতা আনোয়ার হোসেনের প্রথম মৃত্যুবার্ষিকী আজ

ভারতীয় কোম্পানি সিরামকে বাড়তি সুবিধা দিতে গিয়ে ভ্যাকসিন নিয়ে আজকে জটিলতা তৈরি হয়েছে।

ব্যর্থতার দায়ে স্বাস্থ্যমন্ত্রীর এখনই পদত্যাগ করা উচিৎ : ব্যারিস্টার মাহবুব উদ্দিন…

বিএনপির উপজেলা কার্যালয়ে হামলা করে জিয়াউর রহমান ও বেগম খালেদা জিয়ার ছবি ভাঙচুর কারীদের এই আহবায়ক কমিটির শীর্ষ পদে আসীন করার অভিযোগ।

নোয়াখালীতে যুবদলের আহ্বায়ক কমিটি নিয়ে ক্ষোভ-অসন্তোষ

আপনার মন্তব্য লিখুন

আপনার ইমেইল ঠিকানা প্রকাশিত হবে না।