মনোহরগঞ্জে প্রবাসীর স্ত্রী ও মেয়ের লাশ সোনাইমুড়ি থেকে উদ্ধার 

0 162

নোয়াখালীর সোনাইমুড়ীতে ৩ বছরের শিশু কন্যাসহ বকুল আক্তার নামে এক প্রবাসীর স্ত্রীর লাশ উদ্ধার করা হয়েছে।

শনিবার দুপুরে খবর পেয়ে সোনাইমুড়ী উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স থেকে লাশ দুইটি উদ্ধার করে থানা পুলিশ। নিহত বকুল আক্তার উপজেলার আলোকপাড়া গ্রামের মৃত আব্দুর রবের মেয়ে।
নিহতের মা সামনা বেগম জানান, উপজেলার মৃত আব্দুর রবের কণ্যা বকুল আক্তারেরর সাথে পাশ্ববর্তী কুমিল্লা জেলার মনোরহগঞ্জ থানার নাহারপাড় গ্রামের শাহজাহানের ছেলে বাহরাইন প্রবাসী আবদুর রহিমের সাথে ২০১২ সালে পারিবারিকভাবে বিবাহ হয়। বিয়ের পর থেকেই পাশুন্ড শ্বশুর শাহজাহান, শাশুুড়ি আয়েশা বেগম ও ননদ শাজেদা আক্তার পারিবারিক বিষয়াটি নিয়ে তার উপর অত্যাচার নির্যাতন চালিয়ে আসছিল। শনিবার সকালে পূর্বের ন্যায় শ্বশুরালয়ের লোকজন তার উপর আবার নির্যাতন শুরু করে। এ সময় তার দুই কণ্যা রুপা আক্তার (৭), ফাতেমা আক্তার (৩) কেও মারধর করা হয়। এক পর্যায়ে পাশুন্ড শ্বশুরালয়ের লোকজন তাদেরকে মারধর করতে করতে তাদের মা-মেয়ে ৩ জনের মুখে বিষ ঢেলে দেয়। পরে স্থানীয়রা তাদের উদ্ধার করে সোনাইমুড়ী উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিলে কর্তৃব্যরত ডাক্তার বকুল আক্তার ও ফাতেমা আক্তারকে মৃত ঘোষণা  করে। মুহূর্ষুু অবস্থায় রুপা আক্তারকে নোয়াখালী জেনারেল হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে।
খবর পেয়ে সোনাইমুড়ী থানার এসআই ফারুক হোসাইন লাশ উদ্ধার করে প্রাথমিক সুরতহাল রিপোর্ট তৈরী  করে নোয়াখালী জেনারেল হাসপাতাল মর্গে পাঠানো হয়েছে।
সোনাইমুড়ী থানা অফিসার ইনচার্জ (ওসি) আবদুস সামাদ বলেন, লাশ দুটি উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য পাঠানো হয়েছে। সংশ্লিষ্ট থানায় একটি অপমৃত্যুর মামলা রুজু করা হয়েছে।
পরিবার সূত্রে জানা যায়, নি

আরও পড়ুন

আপনার মন্তব্য লিখুন

আপনার ইমেইল ঠিকানা প্রকাশিত হবে না।