সাংবাদিকদের উপর হামলার প্রতিবাদে নোয়াখালীতে মানববন্ধন

0 7

ঢাকায় গ্লোবাল টেলিভিশন অফিসের মূল ফটকের সামনে গ্লোবাল টেলিভিশনের অ্যাসাইমেন্ট এডিটর ও ক্রাইম চীফ আনিসুর রহমান সাব্বির, স্টাফ রিপোর্টার রাশেদ খান, তরুণ বেগী, শাহরিয়ার বাঁধন, ক্যামেরাপার্সন সনি, গাড়ি চালক ইকবাল ও হাফিজের উপর সন্ত্রাসী মুন্না বাহিনীর হামলার প্রতিবাদে সন্ত্রাসী মুন্নাসহ জড়িতদের দ্রুত গ্রেফতারের দাবিতে নোয়াখালীতে মানববন্ধন ও প্রতিবাদ সভা অনুষ্ঠিত হয়েছে।

রবিবার (১৯ জুন) দুপুর সকাল ১২ টায় জেলার প্রেসক্লাবের সামনে কর্মরত প্রিন্ট ও ইলেকট্রনিক মিডিয়ার সাংবাদিকরা মানববন্ধন ও প্রতিবাদ সভায় অংশগ্রহণ করে।

মানববন্ধনে অন্যান্যদের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন ইন্ডিপেন্ডেন্ট টেলিভিশন ও যায় যায় দিন পত্রিকার স্টাফ রিপোর্টার আবু নাছের মঞ্জু, প্রথম আলোর স্টাফ রিপোর্টার মাহবুবুর রহমান, এনটিভির স্টাফ রিপোর্টার মাসুদ পারভেজ, নিউজ টোয়েন্টিফোর ও বাংলাদেশ প্রতিদিনের জেলা প্রতিনিধি আকবর হোসেন সোহাগ, এস.এ টিভির জেলা প্রতিনিধি আব্দুর রহিম, ডিবিসি চ্যানেলের জেলা প্রতিনিধি আসাদুজ্জামান কাজল, মাইটিভির জেলা প্রতিনিধি আবুল হাসনাত বাবুল, জাগো নিউজের নোয়াখালী জেলা প্রতিনিধি ইকবাল হোসেন মজনু, দৈনিক গণমুক্তির ব্যুরো প্রধান গাজী রুবেল, গ্লোবাল টিভির স্টাফ রিপোর্টার ও বিডি২৪লাইভের নোয়াখালী জেলা প্রতিনিধি আবু রায়হান সরকার ও ফেনী জেলা প্রতিনিধি রফিকুল ইসলাম, সোনাইমুড়ী উপজেলা প্রতিনিধি হুসাইন মাহমুদ, দৈনিক মানবজমিনের সোনাইমুড়ী প্রতিনিধি আমিরুল ইসলাম মানিকসহ প্রমুখ।

মানববন্ধন ও প্রতিবাদ সভায় বক্তারা গ্লোবাল টেলিভিশনের সাংবাদিকসহ সারা দেশে সাংবাদিকদের উপর হামলার নিন্দা ও প্রতিবাদ জানান।সাংবাদিকরা জাতির দর্পণ রাষ্ট্রের ৪র্থ স্তম্ভ।তাদের উপর হামলা করলে কিংবা তাদেরকে দমিয়ে রাখার চেষ্টা করলে দেশ পিছিয়ে যাবে।সাংবাদিকরা সংবাদ সংগ্রহ করতে গিয়ে কারও প্রতিপক্ষ হতে চান না, তারা সত্যটিই তুলে ধরেন। সরকারের কাছে অবিলম্বে অপরাধীদের দ্রুত শাস্তির আওতায় আনার দাবী জানান। এছাড়াও সাংবাদিক নির্যাতনকারী, হেনস্তাকারী, হামলাকারীদের গ্রেফতারে কার্যকরী পদক্ষেপ না নিলে কঠোর আন্দোলনের হুমকি দেন বক্তারা।

আরও পড়ুন
আপনার মন্তব্য লিখুন

আপনার ইমেইল ঠিকানা প্রকাশিত হবে না।