কাউন্টিতে নেমেই এক ওভারে ৩৪ স্টোকসের, ৬৭ বলে করলেন সেঞ্চুরি

19

ইংল্যান্ডের টেস্ট দলের অধিনায়কত্ব পেয়েছেন বেশিদিন হয়নি। এরপর প্রথমবারের মতো নামলেন কাউন্টি খেলতে। নেমেই বিস্ফোরক এক বেন স্টোকসের দেখা মিলল ওর্স্টারের নিউ রোডে। ওর্স্টারশায়ারের মাঠে ডারহামের হয়ে তিনি সেঞ্চুরিটা করেছেন মাত্র ৬৭ বলে। এই সেঞ্চুরির পথে দারুণ এক কীর্তির কাছে চলে গিয়েছিলেন তিনি। তবে শেষমেশ এক ওভারে ছয় ছক্কা না পেলেও তিনি করেছেন ৩৪ রান।

কাউন্টি চ্যাম্পিয়নশিপ ডিভিশন ২-এর ম্যাচে গতকাল খেলতে নেমেছিলেন তিনি। শুরুতে ব্যাট করা ডারহামের টপ থেকে শুরু করে মিডল অর্ডার বেশ পোক্ত হওয়ায় গতকাল বৃহস্পতিবার তিনি ব্যাট করতে নেমেছিলেন ৬-এ।

 

 

আজ দিনের তৃতীয় ওভারে স্কট বর্থউইকের বিদায়ে অপেক্ষা শেষ হয় তার। নেমে শুরুর দিকে তিনি অবশ্য বেশ রয়েসয়েই খেলছিলেন। ৫০ রান ছুঁতে খেলেছিলেন ৪৭ বল। এরপরই নিউ রোড দেখেছে তার প্রলয়নাচন। আভাসটা অবশ্য দিয়েছিলেন পঞ্চাশ ছোঁয়ার আগেই। ইনিংসের ১১২তম ওভারে এড বার্নার্ডকে ছক্কা হাঁকিয়ে ৪৫ থেকে ৫১ রানে পৌঁছেছিলেন।

এরপর শুরু তার ঝড়ের। ৫০ থেকে ১০০ তে পৌঁছুতে খেলেছেন মাত্র ১৭ বল। তার ঝড়ের বড় অংশটা গিয়েছে জশ বেকারের ওপর দিয়ে। ইনিংসের ১১৭তম ওভার করতে আসা তার বলে পরপর পাঁচ ছক্কা হাঁকান স্টোকস। তাতেই ৭০ থেকে পৌঁছে যান ১০০তে।
সেঞ্চুরি ছুঁয়ে মনোযোগ হয়তো একটু নড়েই গিয়েছিল। ষষ্ঠ বলেও হাঁকিয়েছিলেন, টাইমিংয়ের হেরফেরে তা গিয়ে পড়েছে সীমানাদড়ির একটু আগে। ওভারে ছয় ছক্কার কীর্তি আর তাতে গড়া হয়নি স্টোকসের।

স্টোকসের ঝড় অবশ্য সেঞ্চুরি করেই থেমে যায়নি, চলেছে আরও কিছুক্ষণ। পরের ২৪ বলে তুলেছেন আরও ৬১ রান। ব্রেট ডি অলিভিয়েরার বলে সাজঘরে ফেরার আগে তিনি করেছেন ৮৮ বলে ১৬১ রান। তার একটু পরেই ৬ উইকেট হারিয়ে ৫৮০ রান তুলে ইনিংস ঘোষণা করেছে ডারহাম।

আরও পড়ুন

এ সময় বক্তারা আদালতের রায় ও ডাক্তারের চিকিৎসা পত্র বাংলা ভাষায় লিপিবদ্ধ করার জন্য জোরালো দাবি জানান।

চাটখিল কামিল মাদ্রাসায় আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিবস পালিত

অল্পদিনের মধ্যেই এখানকার উন্নয়ন কর্মকাণ্ড গতিশীল হবে জানিয়ে তিনি বলেন, কোনো অন্যায়, অবিচার, অনিয়ম ও চাঁদাবাজ আমার কাছে প্রশ্রয় পাবে না।

নিজ এলাকায় জনগণের ভালোবাসায় সিক্ত হলেন এইচ এম ইব্রাহিম এমপি

মফস্বলে সাংবাদিকতা করা একটা চ্যালেঞ্জ বলে মন্তব্য করেছেন শ্রম ও কর্মসংস্থান মন্ত্রণালয় সম্পর্কিত সংসদীয় স্থায়ী কমিটির সভাপতি ও নোয়াখালী-১ (চাটখিল-সোনাইমুড়ী) আসনের সংসদ সদস্য এইচ এম ইব্রাহিম।

মফস্বল সাংবাদিকতা করা একটা চ্যালেঞ্জ – এইচ এম ইব্রাহিম

এইচ এম ইব্রাহিম বলেন,আমার নির্বাচনী এলাকার অসুবিধাগ্রস্থ মানুষদের মাঝে অতীতের ন্যায় এবারও আমি শীতবস্ত্র বিতরণ করেছি। আমার নেতাকর্মীদের মাধ্যমে আমি প্রায় পঞ্চাশ হাজার পরিবারের কাছে এই শীতবস্ত্র পৌঁছানোর ব্যবস্থা করেছি।

নোয়াখালী-১ আসনে এইচ এম ইব্রাহিম এমপির শীতবস্ত্র বিতরণ

গ্রেপ্তার হওয়া মোশারফ হোসেন টিটু (২২) কবিরহাট থানার সুন্দলপুর ইউনিয়নের ২নং ওয়ার্ডের লাতু সওদাগর বাড়ির মৃত মিয়াধনের ছেলে। সে পেশায় একজন মোবাইল মেকানিক।

কবিরহাটে ভাবির ব্যক্তিগত ভিডিও নিয়ে দেবর গ্রেপ্তার

Comments are closed.