অভিনেতা মাহফুজের গ্রামের বাড়ি রামগঞ্জে সন্ত্রাসী হামলা

651

জনপ্রিয় অভিনেতা মাহফুজ আহমেদ-এর লক্ষ্মীপুর জেলার রামগঞ্জে গ্রামের বাড়িতে হামলা করেছে দুর্বৃত্তরা। হঠাৎ এমন অপ্রীতিকর ঘটনা ঘটায় আতঙ্কিত হয়ে পড়েছে তার পরিবার। এরই মধ্যে পুলিশের কাছে জানানো হয়েছে বিষয়টি। হামলাকারীদের খুঁজছে পুলিশ। ঢাকায় সাংবাদিকদের বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন এই অভিনেতা নিজেই।
মাহফুজ আহমেদ বলেন, ‘আমার গ্রামের বাড়িতে গতকাল সন্ত্রাসীরা হামলা করে। দরজা জানালা ভাঙচুর করেছে, ককটেল ফাটিয়েছে। কে বা কারা করেছে আমরা জানি না। হামলা চলাকালীন সময়ে বাড়িতে আমার বৃদ্ধা মা ছিলেন, আমার ছোট ভাই ও তার ছোট ছেলে ছিল। আমার স্ত্রীও ছিল। খুবই আশঙ্কা জনক অবস্থা বিরাজ করছিল তখন। আমি কোনো ভাবেই এটা মেনে নিতে পারছি না। আমি পুলিশকে জানিয়েছি। স্থানীয় অসি, এসপি সবাইকে জানিয়েছি। তারা আমাকে নিশ্চয়তা দিয়েছে, এটা আর কখনো হবে না। যারা করেছে তাদের খুঁজে বের করে দৃষ্টান্ত মূলক শাস্তির ব্যবস্থা করবে।’
আওয়ামী লিগের নির্বাচনী প্রচারণায় আপনাকে দেখা গেছে। আপনি ভিডিও বার্তায় নৌকা মার্কার জন্য ভোট চেয়েছেন। কোন রাজনৈতিক হামলা কী এটা? উত্তরে মাহফুজ আহমেদ বলেন,‘কোন কারণে যে এই হামলা এটা তো বুঝতে পারছি না। এটা পুলিশই খুঁজে বের করবেন।’
নিজের রাজনৈতিক মতাদর্শ প্রসঙ্গে মাহফুজ আহমেদ বললেন, ‘আমার জীবনে এমন ঘটনা আগে ঘটে নাই। আমি কোনো দলের কর্মীও না। কোনো দলের কর্মী হয়ে কাজ করিনি, করবোও না। তবে ব্যক্তিগত ভাবে শিল্পীদের প্রতি, শিল্পের প্রতি, নাটক সিনেমার প্রতি, সাহিত্যের প্রতি শেখ হাসিনার যে মমতা, ভালোবাসা, খোঁজ খবর রাখা, এটা আমাকে মুগ্ধ করে। এই মুগ্ধতার কারণে উনার প্রতি আমার ব্যক্তিগত দুর্বলতা আছে।’
মাহফুজ আরও বলেন, ‘মনে আছে হয় তো। একটা ছোট বাচ্চা প্রধানমন্ত্রীর কাছে, এলাকায় ব্রিজ নির্মাণের অনুরোধ জানিয়ে একটা চিঠি লিখেছিল। সেই চিঠির উত্তরও উনি দিয়েছিলেন। শেখ হাসিনাকে পছন্দ করার এমন অনেক কারনই আছে। আরকটা কথা বলি, ব্যক্তিগত দুর্বলতা মানে কিন্ত দলীয় দুর্বলতা না। আমি কোনো দল করি না, করবোও না কখনো। আমি দলীয় রাজনীতি পছন্দ করি না। শিল্পীরা দলীয় রাজনীতি না করাই ভালো বলে আমি মনে করি।’
এদিকে সন্ত্রাসী বাহিনী কর্তৃক জনপ্রিয় অভিনেতা মাহফুজ আহমেদ-এর লক্ষ্মীপুরের গ্রামের বাড়িতে হামলার ঘটনায় বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুল কাদের তীব্র নিন্দা ও প্রতিবাদ জানিয়েছেন।

প্রসঙ্গত যে, মাহফুজের আরেক ভাই ড, মামুন আহমেদ। তিনি ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের অধ্যাপক। ড,মামুন বিএনপি পন্থী বুদ্ধিজীবি হিসেবে পরিচিত এবং তিনি ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় শিক্ষক সমিতির সাবেক নির্বাচিত সাধারন

মাহফুজের শ্বশুর সাবেক রাস্ট্রপতি জাপা চেয়ারম্যান হুসেইন মুহাম্মদ এরশাদের ছোট ভাই সাবেক মন্ত্রী জি এম কাদের।

আরও পড়ুন

বিশেষ মেহমান হিসাবে উপস্থিত থেকে বক্তব্য দেন বিএম এর নোয়াখালী জেলার সভাপতি ডাঃ এম এ নোমান,চাটখিল কামিল (এম.এ) মাদ্রাসা পরিচালনা পর্ষদের সভাপতি ও উপজেলা প্রেসক্লাবের সহ-সভাপতি মেহেদী হাছান রুবেল ভূঁইয়া।

চাটখিলে ডিয়ার ছোয়াদ এজেন্সির হজ্জ প্রশিক্ষণ কর্মশালা অনুষ্ঠিত

মাদ্রাসা গভর্নিং বডির সভাপতি মো.মেহেদী হাছান (রুবেল ভূঁইয়া) উপস্থিত নেতৃবৃন্দকে প্রতিষ্ঠানের চলমান উন্নয়ন এবং মাঠ সম্প্রসারণের কাজ সম্পর্কে অবগত করেন এবং মাদ্রাসা ক্যাম্পাস ঘুরিয়ে দেখান।

চাটখিল কামিল মাদ্রাসার উন্নয়ন কার্যক্রম পরিদর্শন করলেন-এইচ এম ইব্রাহিম

মাদ্রাসা গভর্নিং বডির সভাপতি মো.মেহেদী হাছান রুবেল ভূঁইয়া বলেন,ঐতিহ্যবাহী চাটখিল কামিল মাদ্রাসা একটি শতবর্ষী প্রতিষ্ঠান।জাতীয় শিক্ষা সপ্তাহ ২০২৪ এ প্রতিষ্ঠানটি উপজেলার শ্রেষ্ঠ শিক্ষা প্রতিষ্ঠান নির্বাচিত হওয়ায় প্রতিষ্ঠানটির সাথে সংশ্লিষ্ট সকলকে আমার পক্ষ থেকে আন্তরিক ধন্যবাদ জানাচ্ছি।

চাটখিল কামিল মাদ্রাসা শ্রেষ্ঠ শিক্ষা প্রতিষ্ঠান নির্বাচিত

স্থানীয় সূত্রে জানা গেছে, দুপুর ১টার দিকে বাতাসে লাশের দুর্গন্ধ ছড়িয়ে পড়লে স্থানীয় লোকজন দুর্গন্ধের উৎস খুঁজতে থাকে। খোঁজাখুঁজির একপর্যায়ে লামচর গ্রামের সর্দার বাড়ি সংলগ্ন ডোবায় অর্ধগলিত একটি মরদেহ দেখতে পায় তারা।

চাটখিলে বৃদ্ধের অর্ধগলিত মরদেহ উদ্ধার

বেলায়েত হোসেন আশা করেন দলীয় নেতৃবৃন্দ ও তৃণমূলের নেতাকর্মীদের সহযোগিতায় সর্বসাধারনের ভালোবাসায় তিনি বিপুল ভোটে চাটখিল উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান নির্বাচিত হবেন।

চাটখিলে সাংবাদিকদের সাথে উপজেলা চেয়ারম্যান প্রার্থী বেলায়েত এর মতবিনিময়

Comments are closed.